খালেদা জিয়ার দণ্ডাদেশ স্থগিত ও বিদেশে চিকিৎসার অনুমতি চেয়ে আবেদন

0

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার দণ্ডাদেশ স্থগিত ও বিদেশে চিকিৎসার অনুমতি চেয়ে আবেদন করেছে পরিবার। মলবার দুপুরে সচিবালয়ে এ সংক্রান্ত আবেদনপত্র স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের কাছে হস্তান্তর করা হয়। আবেদনপত্রে খালেদা জিয়ার পক্ষে তার ভাই শামীম ইস্কান্দার স্বাক্ষর করেছেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, খালেদা জিয়ার পরিবারের পক্ষ থেকে তার বর্তমান মুক্তির মেয়াদ বাড়ানোর (এক্সটেনশন) জন্য একটি আবেদন আমার কাছে দিয়েছেন। এখন কি ব্যবস্থা নেয়া যায় তা পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য আবেদন পত্রটি মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তার কাছে পাঠিয়ে দিয়েছি।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্তা জানান, করোনাকালীন সময়ে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসা নিশ্চিত করা সম্ভব হয়নি। পাশাপাশি তার সুচিকিৎসা নিশ্চিতের জন্য শারীরিক অসুস্থতায় কোনো পরীক্ষা করা সম্ভব হয়নি বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

অপর এক কর্মকর্তা জানান, পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে মতামতের জন্য আবেদনটি আইন মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে। তাদের মতামত পেলে এ বিষয়ে করণীয় নির্ধারণ করা হবে।

খালেদা জিয়ার পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, দেশে তার উন্নত চিকিৎসা সংকটসহ বয়স, শারীরিক অসুস্থতা ও মানবিক বিবেচনায় তৃতীয় দফায় মুক্তির মেয়াদ বৃদ্ধির অনুরোধ করে প্রয়োজনে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে নেয়ার অনুমতি দিতেও সরকারের কাছে আবেদন জানানো হয়েছে। চলতি মার্চের ২৫ তারিখ তার দ্বিতীয় দফার মুক্তির মেয়াদ শেষ হচ্ছে।

Leave A Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.