ঘূর্ণিঝড়ের কবলে বাংলাদেশ-ভারত দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি!

0

ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে অনুষ্ঠিত রবিবারের টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি ছিল ১০০০তম। আর তা জয়ের মাধ্যমে ইতিহাসের পাতায় স্বর্ণাক্ষরে লিখে রাখলেন মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদরা। ঐতিহাসিক ম্যাচটি ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে জিতেছে টাইগাররা যদিও ছিল না দলের দুই প্রাণভোমরা সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবাল।

ভারতকে বড় ব্যবধানে হারানোর পর বেশ ফুরফুরে মেজাজে আছে টাইগাররা। আগামী ৭ নভেম্বর ভারতের রাজকোটে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচটি। তবে ঘূর্ণিঝড়ের কবলে পড়তে যাচ্ছে বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যকার চলমান সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি। প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘মহা’র কারণে এ ম্যাচটি হওয়া না হওয়া নিয়ে সন্দেহ সৃষ্টি হয়েছে। রাজকোটের আঞ্চলিক আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস এমনটাই বলছে। এমনকি ম্যাচটি বাতিলও হতে পারে।

রাজকোটের আঞ্চলিক আবহাওয়া দফতরের প্রধান জয়ন্ত সরকার বলেন, ‘আগামী বুধবার রাত থেকে বৃহস্পতিবার ভোরের মধ্যে ১২০ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানবে ঘূর্ণিঝড় ‘মহা’। এই মুহূর্তে সাইক্লোন ‘মহা’ দিউ থেকে ৫৮০ কিলোমিটার ও ভারাভালের উত্তর-পশ্চিম থেকে ৫৫০ কিলোমিটার কেন্দ্রে অবস্থান করছে। এই সাইক্লোন ভয়ঙ্কর আকার ধারণ করবে। প্রচণ্ড ঝড়ের কারণে জনজীবন বিপর্যয়ের মুখে পড়তে পারে। সৌরাষ্ট্র ও দক্ষিণ গুজরাটে প্রবল বৃষ্টিপাত হবে। ফলে বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যকার দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি মাঠে না গড়ার সম্ভাবনাই বেশি।’

ভারতের জনপ্রিয় ধারাভাষ্যকার হার্শা ভোগলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে সাইক্লোন এবং ম্যাচের ভবিষ্যৎ নিয়ে লিখেছেন, ‘এখন রাজকোটে ম্যাচটির আগে পূর্ব উপকূলে সাইক্লোনের জন্য ৬-৭ নভেম্বর সৌরাষ্ট্র উপকূলের জেলেদের জন্য বিপজ্জনক অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। আশা করছি, সেখানকার বাসিন্দাদের জন্য সেটা বিপজ্জনক হবে না। এই বছরের আবহাওয়া বেশ অনুনমেয়।’

প্রচণ্ড বায়ু দূষণের কারণে দিল্লিতে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টি নিয়েও শঙ্কা ছিল। বায়ুদূষণের কারণে রাজধানীর স্কুল-কলেজ, অফিস-আদালত বন্ধও হয়ে যায়। তাই বাংলাদেশ-ভারত প্রথম টি-টোয়েন্টি নিয়ে চিন্তা পড়ে গিয়েছিলো আয়োজকরা। কিন্তু দিনের বেলায় রোদের প্রভাব বেশি থাকায় বায়ু দূষণ কমে আসে। শেষ পর্যন্ত ভালোভাবেই সম্পন্ন হয় সিরিজের প্রথম ম্যাচ। আর এমন ম্যাচে ৭ উইকেটে দুর্দান্ত এক জয়ের স্বাদ নেয় বাংলাদেশ। প্রথমবারের মত টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ভারতকেও হারায় টাইগাররা। ফলে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের ১হাজারতম ম্যাচে জয়ের স্বাদ নেয়া দল হিসেবে বাংলাদেশের নাম রেকর্ড বইয়ে লেখা হয়ে যায়।

Leave A Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.