দোকানদার যদি মনে করে আমি খুলবো না বা খুলবো সেটা তাদের সিদ্ধান্ত: বাণিজ্যমন্ত্রী

0

ব্যবসা বাণিজ্যের ভয়াবহ ক্ষতি বিবেচনায় নিয়ে দোকান মালিক সমিতির আবেদনের প্রেক্ষিতে গত সোমবার কয়েক দফা সিদ্ধান্ত পরিবর্তনের পর আগামী ১০ মে থেকে সীমিত আকারে দোকানপাট আর শপিংমল খোলার অনুমতি দেয় সরকার।

মালিক সমিতির আবেদনের পরই শর্ত সাপেক্ষে সীমিত আকারে দোকানপাট ও শপিংমল খোলার অনুমতি দেয়া হয়েছে, এখন খোলা না খোলা মালিক পক্ষের সিদ্ধান্ত। এমনটাই জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

বৃহস্পতিবার (০৭ মে) সচিবালয়ে দেশের চলমান পরিস্থিতিতে ব্যবসা-বাণিজ্য পরিচালনা বিষয়ক এক বৈঠক শেষে তিনি একথা বলেন।

দেশে যথেষ্ট খাদ্য মজুদ আছে জানিয়ে মন্ত্রী আরো বলেন, শনিবার থেকে টিসিবি ২৫ টাকা কেজি দরে পেঁয়াজ বিক্রি করবে। আগামী ৪ মাস নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের কোনো সংকট হবে না বলেও জানান বাণিজ্যমন্ত্রী।

করোনা সংকটে এক মাসের বেশি সময় ধরে বন্ধ দেশের দোকানপাট আর শপিংমল। পহেলা বৈশাখের ব্যবসায় এবার হয়েছে ভরাডুবি। রমজানের প্রায় অর্ধেকটা সময় পেরিয়ে গেছে। ঈদ সামনে রেখে ব্যবসা পরিচালনার ক্ষেত্রে তৈরি হয়েছে অনিশ্চয়তা।

দেশের বাণিজ্যিক পরিস্থিতি নিয়ে সচিবালয়ে এক বৈঠকে বৃহস্পতিবার (০৭ মে) বাণিজ্যমন্ত্রী জানান, সংক্রমণ ঠেকাতে অঞ্চলভিত্তিক শপিংমলে কেনাকাটার নির্দেশনা জারির চিন্তা করছে সরকার।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনেই সব কিছু করতে হবে। দোকানদার যদি মনে করে আমি খুলবো না বা খুলবো সেটা তাদের সিদ্ধান্ত। তবে সরকার জনগণের চিন্তা করেই এসব খুলে দেয়া হয়েছে।

এসময় মন্ত্রী আরো জানান, রমজানে সাধারণ মানুষের কথা চিন্তা করে এবার ৩৫ টাকার পরিবর্তে ২৫ টাকা কেজি দরে টিসিবি’র পেঁয়াজ বিক্রির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। দেশে নিত্যপণ্যের পর্যাপ্ত মজুদ আছে জানিয়ে তিনি বলেন, শুধু রমজান নয়, আরো অন্তত ৪ মাস কোনো সংকট হবে না নিত্যপণ্যের।

এদিকে, আমদানি রফতানি স্বাভাবিক রাখতে বেনাপোল, হিলি, দর্শনা ও বিরল সীমান্ত দিয়ে রেল রুটে ভারতের সাথে আমদানি রফতানি কার্যক্রম শিগগিরই শুরু হবে বলেও জানান তিনি।

Leave A Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.