নওগাঁয় ৩ লাখ টাকা পেয়েও ফিরিয়ে দিলেন রিকশা চালক!

0

ইখতিয়ার উদ্দীন আজাদ, নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁয় স্কুল শিক্ষকের তিন লাখ টাকা ফিরিয়ে দিয়ে উদারতার পরিচয় দিয়েছেন সাজ্জাদ হোসেন নামের এক রিকশা চালক। তার সততায় মুগ্ধ হয়ে পুরস্কারের ঘোষণা দিয়েছেন নওগাঁর সদ্য যোগদানকৃত এসপি আবদুল মান্নান মিয়া।

মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে টাকার মালিক নওগাঁ কেডি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক আবদুল হাকিমকে ফিরিয়ে দিয়েছেন সেই টাকা। রিকশাচালক সাজ্জাদ হোসেন নওগাঁ শহরের জনকল্যাণ হঠাৎপাড়ার ওয়াহেদ আলীর ছেলে।

জানা যায়, গেল ৬ সেপ্টেম্বর সকাল ৯টার দিকে শিক্ষক আবদুল হাকিম সপরিবারে রাজশাহী যাওয়ার উদ্দেশে শহরের মুক্তির মোড় থেকে অটোরিকশায় বালুডাঙা বাসস্ট্যান্ড যান। পরে রাজশাহীর বাসে উঠে একটু দূরে গিয়ে তার কম্পিউটার ব্যাগে থাকা তিন লাখ টাকার কথা মনে হয়। সে সময় ওই টাকার ব্যাগ অটোরিকশায় ফেলে এসেছেন বলে ধারনা করেন তিনি। সঙ্গে সঙ্গে বাস থেকে নেমে বাসস্ট্যান্ডে এসে রিকশাটি খোঁজাখুঁজি করেও না পেয়ে সদর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন।

অভিযোগ পেয়ে সদর থানার এসআই ইব্রাহিম হোসেন শহরের ভেতর দিয়ে যাওয়া প্রধান সড়কের পাশে অবস্থিত কয়েকটি স্থানের সিসি টিভি ক্যামেরা থেকে ফুটেজ সংগ্রহ করেন। পাশপাশি ওই রিকশা চালককে শনাক্ত করার চেষ্টা চালান। উদ্ধার করা হয়।

এদিকে রিকশা চালকও ওই টাকাগুলো নিয়ে বিপাকে ছিলেন বলেন জানান। টাকার ব্যাগ নিয়ে তিন দিন মালিককে খুঁজেন তিনি। পরে না পেয়ে বাড়িতে রেখে দেন। পুলিশ তার বাড়িতে গেলে তিনি বিষয়টি পুলিশকে জানায়।
রিকশাচালক সাজ্জাদ হোসেন বলেন, ওই দিন তারা তড়িঘড়ি করে রিকশা থেকে নেমে যান। পরে দেখি রিকশায় একটি ব্যাগ। এরপর ব্যাগটি বাড়িতে নিয়ে এসে দেখি অনেক টাকা। টাকাগুলো নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়ে যাই।

টাকা হস্তান্তরের সময় উপস্থিত এসপি আবদুল মান্নান মিয়া বলেন, আপনারা সম্পদ বহন করার সময় সাবধানতা অবলম্বন করবেন। আমরা এরই মধ্যে মানি স্কট ব্যবস্থা চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

Leave A Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.